স্বপ্নলোকের সিঁড়ি _ হাসনাহেনা রানু


স্বপ্নলোকের সিঁড়ি

হাসনাহেনা রানু

 

আমি আসব বলে কি দাঁড়িয়েছিলে ধান সিড়ি নদীর তীরে?

ভালবাসবে বলে কি দু'হাত বাড়িয়েছিলে বুকে টেনে নিতে ?

হাওয়ায় দোলা শুভ্র কাশফুলের নিবিড় অরণ্যে নীল শাড়ি,

নীল টিপে সেজেছিলাম নিজেকে অনন্যা করে।

ঠোঁটের বাঁকে ছোট্ট এক কালো তিল দেখে ----

 

তোমার ওই ভেজা ঠোঁটের বাঁকে রিনিঝিনি হাসির ছন্দে

মুখরিত হয়েছিল কি অচিন লোকে :

আমার জানা হয়নি সে কথা।

আমি আসিনি ভালবাসিনি,

আমার প্রেমে তুমি ভাসনি !

নিঃসঙ্গতা কি ছুঁয়ে ছুঁয়ে গেছে তোমাকে ?

ওই দুই চোখ ভেসেছিল কি চোখের জলে ?

কেন আসিনি কাছে টানিনি : ভালবাসিনি সুরের মোহনায় ভাসাইনি ----

 

অভিমানে ভরেছে কি তোমার নিকানো মন ;

এই লুকোচুরি ধাঁধা ভাললাগে না

অনুরাগ রাগ করো না

এখন মেঘলা তোমার মন কাঁদে সারাক্ষণ

কি করে বলব অনুক্ষণ

একটা উপায় বলো না ,

আমার ভালবাসার নীল কষ্টে এক সমুদ্র বয়ে যাবে

তোমার চোখে রবীন্দ্র ভাবনা :

অমিত হয়েই ছুঁয়েছ গভীর রাতে ফোঁটা লাবণ্য স্বপ্ন কুঁড়ি ----

সে কি আমি জানি না?


Post a Comment

স্বপ্নলোকের সিঁড়ি _ হাসনাহেনা রানু

স্বপ্নলোকের সিঁড়ি হাসনাহেনা রানু   আমি আসব বলে কি দাঁড়িয়েছিলে ধান সিড়ি নদীর তীরে ? ভালবাসবে বলে কি দু ' হাত বাড...

[blogger]

MD SAHIDUL

Contact Form

Name

Email *

Message *

Powered by Blogger.
Javascript DisablePlease Enable Javascript To See All Widget